সোমবার, ২১ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১২:১১ অপরাহ্ন

নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি:
চাটগাঁ সময় পত্রিকায় চট্টগ্রাম মহানগর সহ বিভাগের আওতাধীন সকল জেলা, উপজেলা এবং কলেজ / বিশ্ববিদ্যালয় প্রতিনিধি নিয়োগ চলছে । যোগাযোগ : ০১৯৬৫-৬৫২৭৯৬ ।
সংবাদ শিরোনাম :
নগরের সেবকরা আমার কাছে শ্রেষ্ঠ মানুষ : খোরশেদ আলম সুজন বারৈয়াঢালা ইউনিয়ন পরিষদে বীট পুলিশিং সভা অনুষ্ঠিত সীতাকুণ্ডে সড়ক দুর্ঘটনায় এস.আই মাহবুব নিহত পটিয়া উপজেলায় যুব রেড ক্রিসেন্ট-চট্টগ্রামের মৌলিক ও প্রাথমিক চিকিৎসা প্রশিক্ষণ সম্পন্ন ডাক্তারদের জনগনের সেবায় আত্ম-নিয়োগ করতে হবে : রেজাউল করিম চৌধুরী হাটহাজারী মাদ্রাসায় চিরনিদ্রায় শায়িত আল্লামা আহমদ শফী নারীদের প্রশিক্ষণের মাধ্যমে উদ্দ্যেক্তা হিসেবে গড়ে তোলা হবে: এম.রেজাউল করিম চৌধুরী আল্লামা শাহ আহমদ শফী’র ইন্তেকালে মেয়র প্রার্থী রেজাউল করিমের শোক রাঙ্গুনিয়ায় আ. লীগ নেতার রহস্যজনক মৃত্যু, পরিবারের দাবী হত্যা প্রবীণ রাজনীতিবীদ এম এ খায়েরের সহধর্মীনি নাজমা খায়ের এর ইন্তেকাল

কারিগরিতে ভর্তি ৫০ শতাংশ বাড়ানো হবে: শিক্ষামন্ত্রী







চাটগাঁ সময়: শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি কারিগরি শিক্ষায় ভর্তি ৫০ শতাংশ বাড়াতে হবে উল্লেখ করে বলেছেন যে,“৪র্থ শিল্প বিপ্লব হবে আর্টিফিসিয়াল ইন্টেলিজেন্সের বিপ্লব। যেখানে মানুষের স্বাভাবিক জীবন যাপনের সঙ্গে একান্ত সঙ্গী হয়ে যাবে প্রযুক্তি। ৪র্থ শিল্প বিপ্লব আমাদের জন্য ১টি চ্যালেঞ্জ”।

বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ডের আয়োজনে ৪র্থ শিল্প বিপ্লবের সফল অংশীদার হতে কারিগরি শিক্ষার গুরুত্ব শীর্ষক শুক্রবার (৭ আগস্ট)এক অনলাইন সেমিনারে প্রধান অতিথির বক্তব্যে শিক্ষামন্ত্রী এসব কথা বলেন।



এরই ধারাবাহিকতায় সেমিনারে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন- শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী, কারিগরি ও মাদরাসা শিক্ষা বিভাগের সচিব মো. আমিনুল ইসলাম খান প্রমুখ।

এছাড়া শিক্ষামন্ত্রী বলেন যে,“গতানুগতিক অনেক চাকরি এই শিল্প বিপ্লবের ফলে বিলুপ্ত হয়ে যাবে। চাকরি ক্ষেত্রে পুনরায় নতুন সম্ভাবনার দ্বার উন্মোচিত হবে। এই চ্যালেঞ্জকে আমরা ১টি সম্ভাবনায় পরিণত করতে চাই। এ জন্য আমাদেরকে প্রযুক্তি নির্ভর দক্ষ মানবসম্পদ গড়ে তুলতে হবে। আর সরকার এ লক্ষ্য অর্জনে ২০৫০ সালের মধ্যে কারিগরি শিক্ষায় ভর্তির হার ৫০ শতাংশে উন্নীত করার লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করেছে”।এছাড়া তিনি আরো বলেন যে,“আমাদেরকে পরিবর্তিত পরিস্থিতির সঙ্গে খাপ খাইয়ে নেয়ার দক্ষতা অর্জন করতে হবে। জীবনব্যাপী শিখাই হবে আমাদের প্রধানতম দক্ষতা”।



এছাড়া উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী বলেন যে,“৪র্থ শিল্প বিপ্লব আমাদের জন্য অনেক বড় চ্যালেঞ্জ। আর এ চ্যালেঞ্জ মোকাবিলায় আমাদের বর্তমান জনশক্তিকে প্রয়োজনে রি-স্কিলিং ও আপ-স্কিলিং করার প্রয়োজন হতে পারে।এরই ধারাবাহিকতায় আমরা বিভিন্ন রকম শর্ট কোর্স চালু করতে যাচ্ছি”।



এছাড়া তিনি আরো বলেন যে,“বর্তমান সরকার সবার জন্য কারিগরি শিক্ষার সুযোগ তৈরি করতে কাজ করছে”।মো. আমিনুল ইসলাম খান বলেন যে,“এই ৪র্থ শিল্প বিপ্লবের ফলে আয় বৈষম্য তৈরি হবে।এরই ধারাবাহিকতায় কিছু লোক সল্প সময়ে প্রযুক্তিগত দক্ষতার কারণে অনেক বেশি আয় করবে আর অন্যদিকে কিছু লোক দীর্ঘ সময় ধরে পরিশ্রম করে ও কোনো রকমে জীবিকা নির্বাহ করবে।এ জন্যই শ্রমবাজারের চাহিদা অনুযায়ী কারিকুলাম পরিবর্তন করতে হবে”।

সংবাদটি আপনার ফেসবুকে শেয়ার করুন...
















Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *
















© All rights reserved © 2019 Chatga Somoy
Design & Developed BY N Host BD